Home » খবরের শিরোনাম, ফ্যাশন-লাইফ ষ্টাইল » চুল পরা ঠেকাতে প্রাকৃতিক ঔষধ

চুল পরা ঠেকাতে প্রাকৃতিক ঔষধ

HAIR FALL-2আমরা চুল পরা থেকে মুক্তি পাওার জন্য অনেক কিছুই তো চেষ্টা করে দেখেছি। আসুন এবার প্রাকৃতিক উপায়ে আদার রস অন্যমত শক্তিশালী একটি ভেষজ উপাদান, যা চুলের সব ধরনের সমস্যার সমাধান করতে কার্যকর। আগেরকার দিনে চুলের খুশকি দূর করতে, চুল পড়া কমাতে এবং নতুন চুল গজাতে মাথায় আদার রস ব্যবহার করা হতো।

আদার রস চুলের জন্য উপকারী এর প্রধান কারণ হলো এর পুষ্টিগুণ ও এসিডিক বৈশিষ্ট্য। বেশি মাত্রার এসিডের কারণে এটি চুলের যেকোনো সমস্যা সমাধান করতে পারে। কীভাবে আদার রস ব্যবহার করবেন এবং এটি চুলের জন্য কতটা কার্যকরী সে সম্বন্ধে লাইফস্টাইল বিষয়ক বোল্ডস্কাই ওয়েবসাইটে কিছু পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

চলুন, একনজরে জেনে নিন আদার রস চুলের কোনো কোনো সমস্যার সমাধান করে-Control-Hair-Loss-Naturally আদায় প্রচুর পরিমাণে পটাশিয়াম, ফসফরাস ও ম্যাগনেসিয়াম রয়েছে, যা চুলের গোড়া মজবুত করে এবং নতুন চুল গজাতে সাহায্য করে।নানা কারণেই চুলে খুশকি হয়। এর মধ্যে খাদ্যাভ্যাস, চুলে তেলের ঘাটতি অথবা অতিরিক্ত তেল এবং ময়লা-ধুলাবালি বেশি দায়ী।

এ ক্ষেত্রে আদার রস বেশ কার্যকরী। আদার রসের সঙ্গে গোলাপজল মিশিয়ে ভেজা চুলে লাগান। এটি খুশকির ছত্রাককে একেবারে দূর করে দেয়। অথবা এক টেবিল চামচ লেবুর রসের সঙ্গে আদার রস মিশিয়ে চুলে লাগাতে পারেন। তেলের মতো করে পুরো চুলে লাগান। চুলের গোড়ায় দেওয়ার দরকার নেই। ১৫ মিনিটের বেশি রাখবেন না। এরপর হালকা গরম পানি দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন। দেখবেন, খুশকি ধীরে ধীরে দূর হয়ে যাবে।দুই টেবিল চামচ আদার রসের সঙ্গে এক টেবিল চামচ অলিভ অয়েল মিশিয়ে তেলের মতো করে চুলে লাগান। ১৫ মিনিট পর হালকা গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এতে চুল পরা অনেকটা কমে যাবে।

তিন টেবিল চামচ আদার রসের সঙ্গে এক টেবিল চামচ জোজোবা অয়েল এবং এক চা চামচ মধু মিশিয়ে প্যাক তৈরি করুন। এই প্যাক পুরো চুলে লাগিয়ে ১৫ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন। এতে চুল নরম ও মসৃণ হবে।

Referral Banners

Short URL: http://www.binodonnews.com/?p=10242

Comments are closed

ছবির ঝলক

0113471
Visit Today : 9
Visit Yesterday : 91
Total Visit : 113471
Hits Today : 14
Total Hits : 721347
Who's Online : 1

facebook